‘‘অসুখ হলে কি ওষুধ দিতে হয় তা জানি’’ সিপিএম, বিজেপিকে কার্যত এভাষাতেই আক্রমণ করলেন ডায়মণ্ডহারবারের সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন মল্লিকপুরে প্রকাশ্য জনসভা থেকে তিনি এনআরসি-এর বিরুদ্ধে সূর চড়িয়ে বিজেপিকে একহাত নেন। এদিন তিনি বলেন, ‘‘বাংলায় এনআরসি হবে না। তার জন্য যা করণীয় তা করবো। বাংলায় মোট সাতজন মারা গিয়েছে আজও একজন বসিরহাটে মারা গেছেন।’’ তবে, এনআরসি প্রসঙ্গে যাতে ডায়মণ্ডহারবারে কেউ না মারা যায় সে বিষয়েও খেয়াল রাখবেন বলে জানান তিনি। এখানেই থেমে থাকেননি সাংসদ অভিষেক ‌বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন আক্রমণাত্মক সূরে তিনি বলেন, ‘‘এনআরসি ঘিরে সিপিএম, বিজেপিকে তালা মেরে ঘরে রাখা হবে।’’
প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এনআরসি গুজবে এদিন আত্মহত্যা করেন দক্ষিণ ২৪ পরগণার ফলতার মামুদপুরের বাসিন্দা কালাচাঁদ নামে এক ব্যক্তি। রেশন কার্ড ও আঁধার কার্ড সংশোধন নিয়ে বেশ চিন্তিত ছিলেন কাঁলাচাঁদ। এবিষয়ে আশেপাশের মানুষজনদের সঙ্গে কথা বলেন বলেও জানা গিয়েছে। নাগরিকত্ব হারানোর ভয়েই নাকি তিনি আত্মহত্যা করেন বলে অভিযোগ করা হয় পরিবারের তরফে।
এদিন মৃতের পরিবারের সঙ্গে দেখা করেন ডায়মণ্ডহারবারের সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। সাংসদ তহবিল থেকে মৃতের পরিবারকে ২লক্ষ টাকা, পঞ্চায়েত সমিতি থেকে একটি বাড়ি দেওয়ার ঘোষণা করেন তিনি। এমনতি তৃণমূল কংগ্রেসের ফান্ড থেকেও তিন লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণের আশ্বাস দেওয়া হয়।

https://youtu.be/Q5DVhYdlENE

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here